বিনোদন, সেলিব্রিটি বার্তা

মাগুরার ফয়সাল থেকে অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান

বাংলাদেশ এখন ক্রিকেট বিশ্বের একটি প্রতিষ্ঠিত নাম। এই অবস্থানের অর্জনের জন্য প্লেয়ারের অনেক প্রচেষ্টা এবং প্রতিভা প্রয়োজন। তবে, সাকিব আল হাসান নিজের প্রতিভাধর জন্য বিশ্বব্যাপী সুপরিচিত প্লেয়ার হিসেবে সুনাম গড়তে পেরেছেন। আইসিসি ওডিআই এবং টেস্ট ক্রিকেটের সেরা অলরাউন্ডার ক্রিকেটার হিসাবে প্রতিভাবান খেলোয়াড়কে পদোন্নতি দিয়েছেন। একমাত্র বাংলাদেশি ক্রিকেটাররা এই সম্মান অর্জন করেছেন।

Image result for shakib al hasan photo"

২০০৯ সালের ২২ জানুয়ারিতে সাকিব আল হাসান প্রথমবারের মতো আইসিসি ওডিআই অলরাউন্ডার র্যাঙ্কিংয়ের তালিকায় এক নম্বর স্থান পেয়েছেন। তিনি এই দীর্ঘমেয়াদী জন্য অর্জন ঝুলিতে।বিশ্বের সেরা এ ক্রিকেটারের জন্ম ১৯৮৭ সালের ৪ মার্চ, মাগুরা, বাংলাদেশ। তাঁর পিতা খন্দকার মাসরুর রেজা এবং মা শরিন রেজা। সাকিবের বোন আছে। সাকিবের বাবা ছিলেন একজন সরকারি সার্ভিস হোল্ডার এবং ফুটবলার হিসেবে খুলনা বিভাগের জন্য খেলেছেন। তিনি একটি খেলাধুলা-প্রেমময় পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন কিন্তু মধ্যবিত্ত পরিবারের সদস্য হিসাবে শিক্ষা সম্পন্ন করার পরে ডাক্তার বা প্রকৌশলী হতে স্বপ্ন দেখেন।

Image result for shakib al hasan childhood photos"

সাকিব শৈশব থেকেই অত্যাশ্চর্য ক্রিকেট খেলতেন এবং ক্রিকেট খেলার জন্য বিভিন্ন গ্রামে স্থানীয়ভাবে ভাড়া করতেন। তিনি বি কে এস পির ছাত্র, (বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব স্পোর্টস শিক্ষা)। সাকিব আল হাসান আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল বিশ্ববিদ্যালয়ে নথিভুক্ত হন এবং বিবিএ ডিগ্রি অর্জন করেন। সাকিব আল হাসান ২০০৬ সালের আগস্টে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট শুরু করেছিলেন। সাকিব আল হাসান তার অভিষেকের পর দর্শকদের মনোযোগ আকর্ষণ করেছিলেন। একমাত্র বাংলাদেশী খেলোয়াড় হিসাবে তিনি কেবল ২২ বছর বয়সে তাঁর দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের পক্ষে বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক হয়ে উঠেন। তিনি কলকাতা নাইট রাইডার্সের সর্বোচ্চ বেতনভোগী খেলোয়াড়।

Image result for shakib al hasan childhood photos"

২০১৪ সালের নভেম্বরে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একটি সেঞ্চুরি ও ১০ উইকেট দখল করে সাকিব তৃতীয় আন্তর্জাতিক খেলোয়াড় হিসেবে রেকর্ড বইয়ের মধ্যে প্রবেশ করেন। ইয়ান বোথাম ও ইমরান খানের সঙ্গে তিনি রেকর্ড করেছেন। ২০১৫ সালের জুলাই মাসে তিনি বিশ্বের সপ্তম খেলোয়াড় হয়ে ২০০ উইকেটে ৪০০০ রানের বেশি রান সংগ্রহ করেন। বিশ্বকাপ ২০০৭ সালে হাবিবুল বাশারের নেতৃত্বে, সাকিব বিশ্বকাপে ডেকেছিলেন এবং অর্ধশতকো শতক হাঁকিয়ে ভারতের বিপক্ষে অসাধারণ পারফরম্যান্স করেছিলেন, অবশেষে বাংলাদেশ ঐতিহাসিক জয় লাভ করে। ম্যাচে তামিম ইকবাল ও মুশফিকুর রহিমের রানও অর্ধশতকেরও বেশি। টুর্নামেন্টে তিনি ইংল্যান্ডের বিপক্ষে আরেকটি অর্ধশতক গড়ে তুলেছিলেন। বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রান স্কোরার মোহাম্মদ আশরাফুল ২১৬।

Image result for shakib al hasan 4k wallpaper"

২০১৭ সালের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে যাত্রা শুরু করার আগে সাকিব আল হাসান থেকে বেরিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্তু গ্রুপ পর্যায়ে শেষ ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে তিনি তাঁর নাম হিসাবে হাজির হন। ইনিংসের প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ ২৬ রানে ৩৩ রানে ৪ উইকেট হারানোর সমস্যায় পড়েছে। সাকিব ও মাহমুদুল্লাহ একাই পঞ্চম উইকেট জুটিতে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহ করে পুনর্নির্মাণ করেন যেখানে তারা ২২৪ রান যোগ করে। তিনি সপ্তম ওয়ানডেতে ১১৪ রানের জুটি গড়ে তোলেন এবং বাংলাদেশ ম্যাচটি জিতে নেয়।

Image result for shakib al hasan and mohammad batting"

২০১০ সালে ওরচেস্টারশায়ারের কাউন্টি ক্রিকেট খেলতে সাকিব ইংল্যান্ডে গেলে তিনি আমেরিকান বাংলাদেশী মেয়ে উম্মে আহমেদ শিশিরের সাথে সাক্ষাৎ করেন কিন্তু সামাজিক নেটওয়ার্ক সাইট ফেসবুকের মাধ্যমে তারা একে অপরের সাথে পরিচিত হন। তারপর তারা একে অপরকে ভালোবাসে এবং অবশেষ ১২/১২/১২ এ বিয়ে করেন। শিশিরের বাবা মমতাজ আহমেদ নারায়ণগঞ্জের সরকারি কর্মকর্তা ছিলেন, কিন্তু তার শহর রায়পুরা, নরসিংদী, বাংলাদেশ। ১৯৯৮ সালে, শিশির এর পরিবার তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে চলে আসেন। তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মিনেসোটা বিশ্ববিদ্যালয়ের সফ্টওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের স্নাতক ডিগ্রী সম্পন্ন করেন। হোটেল রূপোশি বাংলাতে তাদের বিয়ের অনুষ্ঠান হয়। বিয়েতে ক্রিকেট ক্রিকেট দল থেকে শুধু তামিম ইকবাল এসেছিলেন। ৮ নভেম্বর ২০১৫ তারিখে, সাকিব আল হাসান আলাইনা হাসান ওব্রে নামে একটি কন্যার পিতা হন।

Image result for shakib al hasan wife"সম্প্রতি ২০১৯ সালের ম্যাচ পাতানোর প্রস্তাব গোপন করায় গত ২৯শে অক্টোবর আইসিসি কর্তৃক দুই বছরের নিষেধাজ্ঞা পান সাকিব কিন্তু নিজের ভুল স্বীকার করে নৈতিকতার পরিচয় দেন যার ফলে তার তিনি ২ বছর থেকে ১বছরের জন্যে নিষিদ্ধ হন।

Image result for shakib al hasan 2019 punishment"

 

তারকালয়/০৪/১১/১৯/রিয়া

Previous ArticleNext Article