বিনোদন, সেলিব্রিটি বার্তা

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা কাপুর

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা কাপুর । এ মাসের শুরুতেই লন্ডন থেকে ফেরেন বলিউডের ‘বেবি ডল’ কনিকা কাপুর। এই গায়িকা নিজেই টুইটবার্তায় জানান, তার করোনাভাইরাসে পরীক্ষার ফল পজিটিভ এসেছে। ইনস্টাগ্রামে কনিকা কাপুর বলেন, ‘চার দিন ধরে আমার জ্বর হয়েছিল। পরীক্ষা করে দেখলাম আমি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। আমি ও আমার পরিবার এখন কোয়ারেন্টিনে আছি। যাদের সংস্পর্শে গিয়েছি, তাদের সঙ্গেও যোগাযোগ করা হচ্ছে। আমার এয়ারপোর্টে চেক হয়েছিল দশদিন আগে, তখন কিছু ধরা পড়েনি। আমি সুস্থ আছি, সাধারণ জ্বরের মতো একটু লাগছে।’’

Image result for করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা

কনিকার জানিয়েছেন, তিনি  যুক্তরাজ্য থেকে ফিরে লখনউতে নিজের বাড়ি যান। তিনি কানপুরে একটি ও লখনউতে দুটি অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেন তিনি। সেই অনুষ্ঠানে অনেক রাজনীতিবিদ, আমলাসহ অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তিরা আসেন। এই গায়িকার করোনাভাইরাস ধরা পড়ায় চিন্তিত হয়ে পড়েছেন অনেকে। কীভাবে এত লোকের সঙ্গে যোগাযোগ করে তাদের কোয়ারেন্টিন করা হবে, সেটা ভেবে উঠতে পারছে প্রশাসন। ভারতে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী, প্রায় ২০০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে বলে জানা গেছে। যার মধ্যে এখন পর্যন্ত ছয়জন প্রাণ হারিয়েছেন।

Image result for করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা

বিদেশ থেকে ফিরে যেখানে বলা হয়েছিল ঘরে কোয়ারানটাইনে থাকতে সেখানে মারণ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা একাধিক পার্টি করে বেরিয়েছেন। মারণ রোগ শরীরে নিয়ে কোনও বিধি নিষেধ না মেনে জনসমক্ষে যাওয়ার মতো অপরাধে ইতোমধ্যেই লখনউ পুলিশ তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছে। এ নিয়ে তাঁকে জিগ্যেস করা হলে কনিকা বলেছেন, ‘এগুলো একেবারে গুজব যে আমি স্ক্রিনিং করাব না বলে বাথরুমে লুকিয়েছিলাম। এটা কীভাবে সম্ভব যে একটি আন্তর্জাতিক বিমান থেকে নামছি অথচ স্ক্রিনিং হচ্ছে না? আমাকে সঠিক পদ্ধতিতে স্ক্রিনিং করা হয়েছে। আমি এক রাত মুম্বইতেও ছিলাম।

Image result for করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা

যেহেতু সেখানে লকডাউন চলছে তাই আমি বাড়ি ফিরে যাই। কিন্তু তখনও সরকারের কোনও নির্দেশ ছিল না যে বিদেশ থেকে এলে সেলফ কোয়ারানটাইন থাকতে হবে। এবং মুম্বই থেকে আসার পরও আমার কোনও লক্ষণই ছিল না। ধরার পড়ার চার দিন আগে আমার লক্ষণ শুরু হয়। চরম দায়িত্বজ্ঞানহীনের মতো লন্ডন থেকে ফিরেই লখনউতে পার্টি করেছেন কনিকা কাপুর। সেই পার্টিতে ছিলেন একাধিক রাজনীতিক-মন্ত্রী-সাংসদ-আমলা ছিলেন। পার্টিতে যোগ দিয়েছিলেন প্রায় ৩৫০ মানুষ। পার্টিতে ছিলেন বসুন্ধরা রাজে সিন্ধিয়াও।

মুখ্য়মন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ মন্ত্রিসভার মন্ত্রী জয়প্রতাপ সিংও। জানা গিয়েছে পার্টির অনেকেই নিজের ইচ্ছেয় কোয়ারানটাইনে গিয়েছেন। ১০ দিন আগে দেশে ফিরলেও মাত্র দিন চারেক আগে থেকে তাঁর সর্দি-কাশি-জ্বরের মতো উপসর্গ দেখা দেয়। ডাক্তারের পরামর্শমতো করোনাভাইরাস পরীক্ষা করালে ফল পজিটিভ এসেছে বলে জানিয়েছেন তিনি। তিনি ও তাঁর গোটা পরিবার পুরোপুরি ভাবে কোয়ারান্টিনে আছেন বলে জানিয়েছেন কনিকা। ডাক্তারের পরামর্শ ও প্রশাসনের নির্দেশ পুরোপুরি মেনে চললে করোনাভাইরাসে ভয় পাওয়ার কিছু নেই বলে জানিয়েছেন বেবি ডল-খ্যাত এই গায়িকা।

Image result for করোনাভাইরাসে আক্রান্ত গায়িকা কনিকা

তারকালয়/২১/০৩/২০২০ রিয়া

Previous ArticleNext Article